কোন কোন উপায় কী ওয়ার্ড রিসার্চ করবেন ? Best in 2022

কোন কোন উপায় কী ওয়ার্ড রিসার্চ করবেন ? কেন প্রয়োজন কিওয়ার্ড রিসার্চ ?

কোন কোন উপায় কী ওয়ার্ড রিসার্চ করবেন ? কেন প্রয়োজন কিওয়ার্ড রিসার্চ ? বর্তমানে যারা ব্লগিং করে এবং যারা অনলাইনের মধ্যে তাদের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান নিয়ে এসেছে তাদের জন্য কিওয়ার্ড রিসার্চ অনেক গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে । কিন্তু বেশি পরিমাণে প্রয়োজন হয়ে দাঁড়িয়েছে যারা ব্লগিং করে তাদের জন্য ।

যারা ব্লগিং করে তারা যখন কোন একটি আর্টিকেল লিখার সময় হয় তখন কিন্তু তারা সর্বপ্রথম সেই আর্টিকেলের জন্য কীওয়ার্ড নির্বাচন করে থাকে । কীওয়ার্ড নির্বাচন করার জন্য অবশ্যই কিছু বিষয় মাথায় রাখতে হবে । সে গুলোকে মাথায় রেখে আপনাকে ভাল মানের একটি কীওয়ার্ড নির্বাচন করতে হবে । সঠিক কীওয়ার্ড নির্বাচন ছাড়া আপনি অনলাইনের মধ্যে উচ্চতর স্থানে যেতে পারবেন না । বা গুগলের টপ পজিশনে মধ্যে বা সার্চ ইঞ্জিনে টপ পজিশনে মধ্যে যেতে পারবেন না । তাই সর্ব প্রথমে আপনাকে কিওয়ার্ড রিসার্চ সঠিকভাবে করতে হবে ।

আপনি যদি ব্লগিং থেকে ভালো পরিমাণে অর্থ উপার্জন করতে চান এবং আপনার ব্লগার এর মধ্যে যদি আপনার অর্গানিক ট্রাফিকের প্রয়োজন হয় তাহলে কিন্তু আপনাকে অবশ্যই সঠিক কিওয়ার্ড রিসার্চ করে নিতে হবে । সঠিক কিওয়ার্ড রিসার্চ এর উপরেই নির্ভর করে আপনার কতটুক আর্নিং হবে এবং আপনার ওয়েবসাইটের মধ্যে বা ব্লগার এর মধ্যে কি পরিমান এর অর্গানিক ভিজিটর যাবে ।

কিওয়ার্ড কি ? :-

কিওয়ার্ড হলো এমন একটি শব্দ বা প্রশ্ন যা কোন একজন ইউজার সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে এসে তার কাঙ্খিত প্রয়োজনীয় বিষয়টি সার্চ করে থাকে । অর্থাৎ যখন কোন একজন ইউজার সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে সার্চ করে তখন কিন্তু সে তার প্রয়োজনে বিষয়বস্তু নিয়ে সার্চ করে যে প্রয়োজনে বিষয়বস্তুর জন্য সার্চ করে যে এই লেখাটা লিখে সেটাকে বলা হয় মূলত কিওয়ার্ড ।

কিওয়ার্ড মূলত কয়েক ধরনের হয়ে থাকে । কিওয়ার্ড সবচেয়ে বেশি ব্যবহার করা হয় এবং প্রয়োজন পড়ে যারা আর্টিকেল তৈরি করে বা আর্টিকেল লিখে তাদের ক্ষেত্রে এবং যারা কাজ করে তাদের জন্য অনেক বেশি প্রয়োজন পড়ে । কিওয়ার্ড রিসার্চ হলো ডিজিটাল মার্কেটিং এর একটি অন্তর্ভুক্ত বিষয় । একজন আর্টিকেল রাইটার একজন ব্লগার যদি সঠিকভাবে কিওয়ার্ড রিসার্চ করতে না পারে তাহলে কিন্তু তার ব্লগে ক্ষেত্রে তেমন বেশি উন্নতি করতে পারবে না ।

অবশ্যই একজন ব্লগার এবং একজন আর্টিকেল রাইটার এর কি ওয়ার্ড রিসার্চ সম্পর্কে সম্পূর্ণ এবং ভালোভাবে ধারণার প্রয়োজন রয়েছে । তাই সর্বপ্রথম ব্লগিং করার পূর্বে বা আর্টিকেল লেখার পূর্বে আপনাকে কিওয়ার্ড রিসার্চ সম্পর্কে জেনে নিতে হবে এবং সম্পন্ন একটি ধারণা নিয়ে থাকতে হবে ।

কিওয়ার্ড এর প্রকারভেদ :-

সাধারণভাবে কিওয়ার্ড 2 প্রকার হয়ে থাকে ।

1 শর্ট টেইল কিওয়ার্ড ।
2 লং টেইল কীওয়ার্ড ।

শর্ট টেইল কিওয়ার্ড :-

শর্ট টেইল কিওয়ার্ড মূলত সেই সকল কিওয়ার্ড কে বলা হয় যেসকল কী ওয়ার্ড মধ্যে শুধুমাত্র একটি বা দুটি শব্দ ব্যবহার করা হয় । অর্থাৎ আপনি যখন গুগল সার্চ ইঞ্জিন বা যেকোনো একটি সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে 2 টি দুইটি বা একটি শব্দ ব্যবহার করে সার্চ করবেন সেটাকে বলা হয় শর্ট টেইল কিওয়ার্ড ।

শর্ট টেইল কিওয়ার্ড মধ্যে অনেক বেশি কম্পিটিশন থাকে এবং শর্ট টেইল কিওয়ার্ড নিয়ে যখন আপনি আর্টিকেল লিখবেন তখন কিন্তু আপনার নতুন অবস্থায় অনেক বেশি কষ্ট হয়ে যাবে । কারণ শর্ট টেইল কিওয়ার্ড উপরে বর্তমানে অনেক বেশি আর্টিকেল রয়েছে । সেই কারণে আপনাকে রেংকিং এ যেতে হলে অবশ্যই শর্ট টেইল কিওয়ার্ড ব্যবহার থেকে একটু বিরত থাকতে হবে ।

লং টেইল কীওয়ার্ড:-

যেসকল কী ওয়ার্ড মধ্যে 3 বা 3 এর অধিক শব্দ ব্যবহার করে সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে সার্চ করা হয় সেগুলো কে বলা হয় লং টেইল কীওয়ার্ড । সাধারণত নতুন ব্লগার বা নতুন ভাবে যারা ব্লগিং শুরু করে তারা কিন্তু লং টেইল কীওয়ার্ড নিয়ে কাজ করতে বেশি পছন্দ করে । লং টেইল কীওয়ার্ড নিয়ে যখন কাজ করা হয় তখন কিন্তু খুব সহজেই এবং অনেক দ্রুততার সাথে গুগলের মধ্যে রেংক করা যায় বা সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে রেংক করা যায় এসকল কী ওয়ার্ড উপরে কিন্তু কম্পিটিশন অনেক কম থাকে । তাই খুব দ্রুতই রেঙ্ক করা যায় ।

কিওয়ার্ড রিসার্চ কেন প্রয়োজন :-

যখন আপনি কোন একটি ব্লগ তৈরি করবেন তখন সেই ব্লগের মধ্যে পর্যাপ্ত পরিমাণে অর্গানিক ট্রাফিক নিয়ে আসার জন্য কী ওয়ার্ড গুরুত্ব অপরিসীম । সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে কিন্তু অনেক ডাটা থেকে থাকে এবং সকল ডাটাকে তারা এই কী-ওয়ার্ড দ্বারা বিভাগ করে তাদের ডাটাবেজ এর মধ্যে স্টোর করে রাখে ।

যখন কোন সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহারকারী তাদের কাঙ্ক্ষিত শব্দটি লিখে সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে সার্চ করে তখন সে সেই কীওয়ার্ড রিলেটেড যে সকল তথ্য সার্চ ইঞ্জিনের কাছে থাকে সে সকল তথ্য সেই ইউজার গাড়ির সামনে উপস্থাপন করে । তাই অবশ্যই আপনাকে কিওয়ার্ড রিসার্চ সম্পর্কে ভালোভাবে জেনে নিতে হবে ।

আপনি যদি সঠিকভাবে কিওয়ার্ড রিসার্চ করতে পারেন এবং আপনার আর্টিকেল এর মধ্যে সঠিকভাবে কিওয়ার্ড রিপ্লেসমেন্ট করতে পারেন এবং আপনার আর্টিকেলটি যদি ভালোভাবে লিখতে পারেন তাহলে কিন্তু আপনার আর্টিকেল এর মধ্যে যে কী-ওয়ার্ডটি থাকবে সেই কিওয়ার্ড ধরে যদি কোন একজন ব্যবহারকারী সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে সার্চ করে তাহলে আপনার রেজাল্ট টি সবার উপরে প্রদর্শন হবে । তাই অবশ্যই আপনার মাথায় রাখতে হবে যে কিওয়ার্ডগুলো আপনি ব্যবহার করবেন সেই কিওয়ার্ডগুলো যাতে ভালোভাবে রিসার্চ করা হয় । সেই কিওয়ার্ড সম্পর্কে আপনার সম্পূর্ণ ধারণা নিতে হবে এবং সকল কিছু জানতে হবে সেই কিওয়ার্ড সম্পর্কে ।

কিভাবে কিওয়ার্ড রিসার্চ করা হয় :-

একজন আর্টিকেল রাইটার বা একজন ব্লগার সর্বপ্রথম কোন একটি আর্টিকেল লেখার পূর্বে তার প্রয়োজন হয় কীওয়ার্ড নির্বাচন করা । কীওয়ার্ড নির্বাচন করার সময় অনেক বিষয় তাকে নজরে রাখতে হয় । কীওয়ার্ড নির্বাচন করার সময় অবশ্যই সেই কী ওয়ার্ড ভলিয়ম সেই কী ওয়ার্ড মধ্যে কি ধরনের কম্পিটিশন রয়েছে এবং সেই কী ওয়ার্ড উপরে কেমন CPC রয়েছে সে সম্পর্কে সম্পূর্ণ ভাবে আপনাকে ধারণা রাখতে হবে ।

কিওয়ার্ড কম্পিটিশন :- 

আপনি যদি নতুন ব্লগার হয়ে থাকেন তাহলে অবশ্যই আপনাকে একটি বিষয় মাথায় রাখতে হবে আপনি যে বিষয়ে লেখালেখি করবেন সে বিষয়ে যাতে কম লোকই লেখালেখি করেছে । অর্থাৎ আপনার প্রতিদ্বন্দী কম রয়েছে এবং আপনার গুগলের টপ পজিশনে আসার সম্ভাবনা রয়েছে সেই বিষয় নিয়ে লেখালেখি করা অনেক বেশি উত্তম ।

আপনি এমন একটি কীওয়ার্ড নির্বাচন করবেন যে কি-ওয়ার্ড এর মধ্যে কম্পিটিশন অনেক কম রয়েছে । সর্বপ্রথম আপনাকে এই বিষয়টা বের করে নিতে হবে । কিওয়ার্ড কম্পিটিশন চেক করার জন্য অনেকগুলো ফ্রী টুলস রয়েছে এবং অনেকগুলো পেট টুলস রয়েছে কিন্তু আপনি যদি সম্পূর্ণ ফ্রিতে চেক করতে চান তাহলে আমার সাজেস্ট হলো আপনি নির্বিঘ্নে ( গুগল কিওয়ার্ড প্ল্যানার ) এই টুলসটি ব্যবহার করতে পারে ।গুগল কিওয়ার্ড প্ল্যানার এটি গুগলের একটি টুলস এটি দিয়ে আপনি সম্পূর্ণ ফ্রিতে কিওয়ার্ড রিসার্চ করে নিতে পারবেন এবং কিওয়ার্ড রিসার্চ করার সময় আপনি আরও অনেক কিছু বাড়তি দেখতে পারবেন । এর থেকে আপনি ভালো একটি ধারণা পেয়ে যাবেন আপনার কিওয়ার্ড যে টি নির্বাচন করেছেন সেটি কি ধরনের কিওয়ার্ড ।

তাই অবশ্যই আপনি যখন কীওয়ার্ড নির্বাচন করবেন সর্বপ্রথম আপনাকে দেখে নিতে হবে কি ওয়ার্ড এর মধ্যে কম্পিটিশন কি ধরনের রয়েছে আপনি কি সেই কম্পিটিশন বিট করে আপনার লেখা আর্টিকেলটি সবার উপরে নিয়ে যেতে পারবেন কিনা বা সার্চ ইঞ্জিনের টপ পেজ এর মধ্যে নিয়ে আসতে পারবেন কিনা ।

কিওয়ার্ড এর ভিজিটর / কিওয়ার্ড ভলিয়াম :-

এরপর আপনাকে দেখতে হবে কী ওয়ার্ড মধ্যে কি ধরনের ট্রাফিক রয়েছে । আপনি একটি আর্টিকেল অনেক কষ্ট করে লিখেছেন কিন্তু সেই আর্টিকেল এর জন্য সঠিকভাবে আপনি কি ওয়ার্ড নির্বাচন করতে পারেননি তখন কিন্তু শেষ পর্যন্ত দেখা যাবে আপনার আর্টিকেলটি গুগলের মধ্যে ঠিক রেংক করতেছে ।
কিন্তু ভিজিটর আসতেছে না ।

এতে করে আপনার উপার্জনও অনেক কমে যাবে । তাই অবশ্যই আপনি এমন কিওয়ার্ড নির্বাচন করবেন যেগুলোর মধ্যে মোটামুটি ভিজিটর থাকে । আপনি যদি এমন কিওয়ার্ড নির্বাচন করেন যেগুলোর মধ্যে প্রতি মাসে 1 হাজার করে ট্রাফিক আসে তাহলে কিন্তু মাসে দেখা যাবে আপনার যদি 50 টি আর্টিকেল থাকে 50 হাজার ভিউয়ার্স চলে আসবে । তাই অবশ্যই এমন একটি কীওয়ার্ড নির্বাচন করতে হবে যে কি-ওয়ার্ড এর মধ্যে সর্বনিম্ন প্রতিমাসে 500 থেকে 1000 ট্রাফিক থাকে । এবং সেই কী-ওয়ার্ডটি যাতে গুগলের মধ্যে আপনার যেই সকল কম্পিটিশন রয়েছে সে গুলোকে সহজে বিট করে আপনার লেখা কৃত আর্টিকেলটি সবার উপরে আসতে পারে ।

সিসিপিসি / CPC :-

CPC হল মূলত আপনার আর্টিকেল এর মধ্যে যে এডভেটাইজ গুলো করবে সেই এডবেডাইস কোম্পানিগুলোকে কি ধরনের অর্থ প্রদান করে থাকে ।সেই বিষয়টা আপনার একটি ব্লগ রয়েছে এবং সে ব্লগ এর মধ্যে একটি আর্টিকেল লিখেছেন এবং সেই আর্টিকেল এর মধ্যে যে বিজ্ঞাপনটি প্রদর্শিত হল সেই বিজ্ঞাপনের একটি ক্লিকের জন্য 1 ডলার করে দেয় ।

তখন কিন্তু আপনি যে বিষয়ের উপরে আর্টিকেলটি লিখেছেন সেই আর্টিকেল এর যে কিবোর্ডটি রয়েছে সেটির কী ওয়ার্ড সিপিসি হলো 1 ডলার ।আশা করি আপনারা সিপিসি ব্যাপারটা অবশ্যই বুঝতে পেরেছেন । তাই অবশ্যই আপনারা আর্টিকেল লেখার পূর্বে আর্টিকেল এর কী-ওয়ার্ডটি সম্পূর্ণভাবে দেখে নেবেন এর সিপিসি কেমন রয়েছে ।

আপনি যখন ব্লগার এর মধ্যে অর্থ উপার্জনের জন্য আর্টিকেলগুলো লেখবেন তখন কিন্তু আপনাকে অবশ্যই সিপিসির উপরে নজর দিতে হবে কারণ আপনি আর্টিকেলগুলো লিখবেন অর্থ উপার্জনের জন্য যদি সে আর্টিকেল এর মধ্যে ভালো সিপিসি না থাকে তাহলে কিন্তু আপনি ভালো উপার্জন করতে পারবেন না ।

কিওয়ার্ড রিসার্চ এর মূল কারণ কি :-

কিওয়ার্ড রিসার্চের মূল কারণ হল আপনি সঠিকভাবে সার্চ ইঞ্জিনের মধ্যে রেঙ্ক করা । আপনার কম্পিটিটরদের ওয়েবসাইট গুলো কেমন হয়েছে সে সম্পর্কে ধারণা নেওয়া । আপনি যে আর্টিকেলটি লিখবেন সে আর্টিকেলটির মধ্যে কি ধরনের বিজ্ঞাপনগুলো রয়েছে এবং বিজ্ঞাপনগুলোর জন্য কি পরিমান অর্থ প্রদান করে থাকে ।এ সমস্ত বিষয়গুলো সম্পর্কে আপনাকে ধারণা নেয়ার জন্য মূলত কিওয়ার্ড রিসার্চ করা হয়ে থাকে ।

আমাদের শেষ কথা :-

আমাদের আজকের ব্লগ পেয়েছিল কিওয়ার্ড সম্পর্কে আপনারা যদি সঠিকভাবে ব্লগ টি সম্পূর্ণ পড়ে থাকেন তাহলে আশাকরি আপনারা সম্পূর্ণভাবে কিওয়ার্ড এর ব্যাপারে ধারণা পেয়ে গেছেন । আমরা চেষ্টা করেছি যতোটুকু সম্ভব আপনাদের কে ভালোভাবে বুঝিয়ে বলার । এবং সংক্ষিপ্ত ভাবে বুঝিয়ে বলার আপনারা কি ওয়ার্ড কিভাবে নির্বাচন করবেন ।

আশা করি আপনারা সম্পূর্ণ ব্লগ টি পড়েছেন এবং আপনারা সম্পন্ন ব্লগ টি পড়ে কিভাবে কীওয়ার্ড নির্বাচন করতে হবে সেটি বুঝতে পেরেছেন । তাহলে আজকের জন্য এখানেই বিদায় পরবর্তীতে অন্য কোন ব্লগ নিয়ে বা অন্য কোন বিষয় নিয়ে আপনাদের সামনে হাজির হবে । আল্লাহ হাফেজ ভাল থাকবেন সবাই ধন্যবাদ ।

2 thoughts on “কোন কোন উপায় কী ওয়ার্ড রিসার্চ করবেন ? Best in 2022

Leave a Reply

Your email address will not be published.